জগন্নাথ দেবের ভোগ কি কি ব্যবহার করা হয় জেনে নিন

শ্রীক্ষেত্র পুরীধামের জগন্নাথ মন্দিরের ভোগ তৈরি হয় সম্পূর্ণ দেশীয় উপাদান দিয়ে। মাটির পাত্রে প্রতিদিন সমপরিমাণ ভোগ রান্না করা হয় মন্দির সংলগ্ন রন্ধনশালায়। পুরীর মন্দিরে রান্নায় ব্যবহৃত হয় না আলু। আলু যেহেতু ইউরোপিয়ান সবজি, তাই-ই আলুর বদলে রাঙা আলু বা মেটে আলু ব্যবহৃত হয়। একইভাবে লঙ্কার বদলে গোলমরিচ আর ঝাল মূল ব্যবহৃত হয়। দেবভক্ষ্য নয় বলে ব্যবহৃত হয় না টোম্যাটো, গাজর বা চিচিঙ্গা। কাজুবাদাম দেখতে চিংড়ি মাছের মতো বলে ব্যবহার করা হয় না তা-ও। বদলে কাঠ বাদাম দেওয়া হয় রান্নায়। ছানার মিষ্টির ব্যবহার ও নিষিদ্ধ তার বদলে ক্ষীরের মিঠাই, খাজা, রসাবলী, মণ্ডা আর নানা রকমের লাড্ডু দেবতাকে ভোগ হিসাবে দেওয়া হয়। শ্রীমন্দিরের দেবতা ও দেবীর অঙ্গরাগের ক্ষেত্রেও ওই একই দেশে উৎপাদিত উপাচার ব্যবহারের বিষয়টি খেয়াল রাখা হয়। তাই আতর ব্যবহার না করে কেশর, কস্তুরী, কর্পূর, চন্দন দিয়ে অঙ্গরাগ করা হয়। ফুলের ব্যবহারের ক্ষেত্রেও একই নিয়ম অনুসরণ করা হয়।

দেশ ও এই সময়

24×7 NATIONAL NEWS PORTAL

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *