কেরোসিন তেল ঢেলে আগুন দিয়ে আত্মহত্যা

নিজস্ব সংবাদদাতা, হাবড়াঃ উঃ ২৪ পরগনা জেলার হাবড়াতে স্ত্রীর সাথে অন্যের বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের কারণে পড়ার এক ক্লাবে মীমাংসায় গিয়ে অপমানিত হয়ে গায়ে কেরোসিন তেল ঢেলে আগুন দিয়ে আত্মহত্যা করলেন সুজয় পাল (৩৫) নামে এক ব্যাক্তি | এই ঘটনায় জেরে গ্রেফতার প্রতিবেশী আয়কর দপ্তরের আধিকারিক ও তার স্ত্রী । জানা গেছে, বাণীপুর ইতিনা মিলন সংঘের এক কর্মকর্তা কাস্টমস অফিসার তপন দাস ওরফে বাবলি মদ্যপ অবস্থায় ক্লাব সংলগ্ন প্রতিমা শিল্পী সুজয় পালের বাড়িতে ঢুকে ৪ তারিখ রাত্রে সুজয়বাবুর স্ত্রীকে ধর্ষনের চেষ্টা করেন। সুজয়বাবুর বাড়িতে তখন কেউ ছিলেন না। আহত মহিলার চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা তাকে উদ্ধার করে হাবরা হাসপাতালে ভর্তি করে। কিন্তু ক্লাব বিষয়টি গোপন করে যায়। গতকাল ৫ তারিখ সন্ধ্যায় ক্লাবের হুমকির কারণে অপমানিত সুজয় পাল গায়ে আগুন দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। রাত্রে হাবরা হাসপাতালে গুরুতর আহত সুজয়বাবুকে ভর্তি করা হয়েছে। আজ সকালে সুজয় এম আর বাঙ্গুর হাসপাতালে মারা যায়। উত্তেজিত মহিলারা গতকাল রাতেই তপনের বাড়ি ভাঙচুর চালায়। পুলিশ তপন ও তার স্ত্রীকে গ্রেফতার করেছে। তবে স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ মৃতের স্ত্রী সোমা পাল ক গ্রেফতার করতে হবে সোমা দীর্ঘদিন ধরে বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কে জড়িয়ে ছিল তপনের সঙ্গে। বরের নিষেধ না শুনে অবাধ তারা মেলামেশা করতো। তার জেরেই গায়ে আগুন দিয়ে আত্ম হত্যা পথ বেছে নিতে হল সুজোয় পালকে। সুজয়ের একটি ৮ বছরের কন্যা রয়েছে। রবিবার একমাত্র কন্যাকে রেখেই স্বামীর সঙ্গে অশান্তি করে বাপের বাড়ি চলে যায় সোমা। তারপরেই সোমবার সন্ধ্যায় এই ঘটনা।

দেশ ও এই সময়

24×7 NATIONAL NEWS PORTAL

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *