পশ্চিমবঙ্গ তৃনমূল প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির নন্দীগ্রাম পশ্চিম চক্রের ৬ষ্ঠ সম্মেলন

দিপালী দেবনাথ(বাগ), পূর্ব মেদিনীপুর:- “বাম আমলে শিক্ষকদেরকে দিয়ে মিটিং মিছিল থেকে শুরু করে বাড়ি বাড়ি ভোট প্রচারে পাঠানো হতো।৩৪ বছর ধরে চরম অপমানে কাটিয়েছেন শিক্ষকেরা।২০১১ সালে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সরকার আসার ফলে দুর্বিসহ যন্ত্রনা থেকে আপনারা মুক্তি পেয়েছেন”রবিবার পশ্চিমবঙ্গ তৃণমূল প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির নন্দীগ্রাম পশ্চিম চক্রের ৬ষ্ঠ সম্মেলনে বলেন দিব্যেন্দু অধিকারী।

এই অনুষ্ঠানে দিব্যেন্দু অধিকারী প্রথমে বলেন আমি এখানে কোন রাজনৈতিক বক্তব্য দিতে আসিনি শুধু আপনাদের সহমত নিতে এসেছি।
বলেন হ্যাঁ আপনাদের অনেক ক্ষোভ আছে, দাবিদাওয়া আছে সেই নিয়ে পর্যালোচনা করার দরকার রয়েছে।

বিদায়ী সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী বলেন আমাদের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যখন ২০১১ সালে ক্ষমতায় আসেন।আর ও অতীতে গেলে ২০০৭ সালে বাম শাসনে নন্দীগ্রামে যে রক্তাক্ত ঘটনা ঘটেছিল।সেই আন্দোলনে গণ আন্দোলনে পরিণত হয়েছিল।আর আপনাদের মতো সাধারণ মানুষ তাঁকে দুহাত তুলে আশীর্বাদ করেছিলেন আজও তিনি আপনাদের সঙ্গে আছেন ও থাবেন।
রেয়াপাড়া বেসিক কলেজের সভাকক্ষে নন্দীগ্রাম পশ্চিম চক্রের ৬ষ্ঠ সম্মেলনে বিদায়ী সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী ছাড়াও নন্দীগ্রাম ২ পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি মলিনা দাস ‘সহ সভাপতি মহাদেব বাগ ,খোদামবাড়ী ২ গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান মালবিকা মাইতি, তারাপদ খাটুয়া , নাড়ুগোপাল জানা , প্রভাস মাইতি ও বিভিন্ন স্কুল থেকে আগত শিক্ষক- শিক্ষিকা সহ অনান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

দেশ ও এই সময়

24×7 NATIONAL NEWS PORTAL

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *